288
209 shares, 288 points

ক্রিপ্টোকারেন্সি বেশ কয়েক বছর ধরে আলোচনার একটি জনপ্রিয় বিষয়। এখনকার সময়ে প্রথম সারির উপরের দিকের মুদ্রা গুলাই হলো ক্রিপ্টোকারেন্সি। ক্রিপ্টোকারেন্সি হলো ডিজিটাল মুদ্রা। এটি দেশ অথবা তার সরকারের কাছে সীমাবদ্ধ থাকে না। ক্রিপ্টোকারেন্সির একটি গুরুত্বপূর্ণ বৈশিষ্ট্য হল ক্রিপ্টোকারেন্সিগুলি বিকেন্দ্রীভূত। এর উপরে কোন ব্যাংক বা কোন প্রতিষ্ঠানের কোন নিয়ন্ত্রন নেই। একটি ক্রিপ্টোকারেন্সি হলো ডিজিটাল সম্পত্তির একটি নতুন রূপ যা একটি বৃহত সংখ্যক কম্পিউটার জুড়ে বিতরণ করা হয়।

ক্রিপ্টোকারেন্সির উদ্দেশ্য কী?

ক্রিপ্টোকারেন্সি হ'ল সাধারণ মুদ্রার মতো বিনিময় করার মাধ্যম, তবে ডিজিটাল তথ্য বিনিময় করার উদ্দেশ্যে তৈরি করা হয়।  ক্রিপ্টোকারেন্সিকে একটি বিকেন্দ্রীভূত "ডিজিটাল বা ভার্চুয়াল মুদ্রা যা সুরক্ষার জন্য ক্রিপ্টোগ্রাফি ব্যবহার করে" হিসাবে জাল করা  শক্তিশালি করে তোলে।

একটি ক্রিপ্টোকারেন্সি কীভাবে কাজ করে?

ক্রিপ্টোকারেন্সি ওয়ালেটস " নামক সফটওয়্যার ব্যবহার করে যাদের ওয়ালেটস আছে তাদের মধ্যে লেনদেনগুলি প্রেরণ করা হয় । লেনদেন তৈরি করা ব্যক্তি ওয়ালেট সফ্টওয়্যারটি একাউন্ট থেকে অন্য অ্যাকাউন্টে  ব্যালেন্স পাঠাতে ব্যবহার করে।

ক্রিপ্টোকারেন্সি কী দ্বারা সমর্থিত?

নিরাপত্তাহীনতার কারনে ক্রিপ্টোকারেন্সিকে কোনও সরকার ও ব্যাংক সমর্থন করে না ।

আপনি কীভাবে ক্রিপ্টোকারেন্সি পাবেন?

  1. আপনাকে মাইনিং করতে হবে।(প্রক্রিয়াটি কিছুটা জটিল)
  2. যার কাছে ক্রিপ্টোকারেন্সি আছে তার থেকে আপনার সচরাচর মুদ্রা ব্যাবহার করে কিনতে পারবেন।
  3. বেশির ভাগ ওয়েবসাইট এ আজকাল ক্রিপ্টোকারেন্সি তে লেনদেন করে থাকে।
  4. পেমেন্ট হিসাবে ক্রিপ্টোকারেন্সিতে নিন
  5. মাইক্রোটাস্কের মাধ্যমে প্রকল্পগুলিকে প্রচার করতে সহায়তা করুন
  6. স্টাইপিং দ্বারা ক্রিপ্টো উপার্জন করুন
  7. ফ্রিল্যান্সিং শুরু করুন এবং বিটকয়েনে অর্থ প্রদান করুন

২০২০ সালে কোন ক্রিপ্টোকারেন্সি সেরা?

  1. লিটকয়েন (এলটিসি) …
  2. ইথেরিয়াম (ইটিএইচ) …
  3. জেডক্যাশ (ZEC) …
  4. ড্যাশ (ড্যাস) …
  5. রিপল (এক্সআরপি) …
  6. মোনেরো (এক্সএমআর) …
  7. বিটকয়েন ক্যাশ (বিসিএইচ) …
  8. নিও (এনইও)

এখন বলতে পারেন এখানে কেন বিটকয়েন নেই । কারন বিটকয়েন বরাবরের মতই জনপ্রিয় এবং সেরা ।

বিটকয়েনের মুল্য কত?

বিটকয়েনের মূল্য নির্দিষ্ট করে বলা সম্ভব হয় না । কারন ক্রিপ্টোকারেন্সি গুলোর মধ্যে বিটকয়েনের দাম সবসময় উঠানামা করে। আজকের বাজারে ১ বিটকয়েন = ৯০১১.০১ আমেরিকান ডলার, যা বাংলাদেশের জন্য ৭ লাখ ৬১ হাজার ৫৮৫ টাকা ।

আশা করা যায় আগামি কিছু দিনের ভিতর এর দাম আরো চড়া হতে পারে এবং ২০২০ সালের শুরুতে ১০ হাজার অ্যামেরিকান ডলার অতিক্রম করে যাবে ।

সর্বশেষ ভাবনা

ক্রিপ্টো শিল্প বিশাল।

এই পোস্টের মাধ্যমে, আমি উপার্জনের কয়েকটি নিরাপদ পদ্ধতিগুলি কভার করার চেষ্টা করেছি, এজন্য আমি কেনাবেচা বা জুয়ার মতো ক্রিয়াকলাপগুলিকে অন্তর্ভুক্ত করি নি।

আপনি শুরু করার আগে মনে রাখবেন আপনার একটি ক্রিপ্টো ওয়ালেট দরকার । আপনার যদি না থাকে বা কোনটি করবেন তা নিশ্চিত না হলে এখানে কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না ।


Like it? Share with your friends!

288
209 shares, 288 points

What's Your Reaction?

hate hate
8
hate
confused confused
20
confused
fail fail
14
fail
fun fun
12
fun
geeky geeky
10
geeky
love love
5
love
lol lol
6
lol
omg omg
20
omg
win win
14
win
Reyad

Level Five

যদি(কিছু_জানো){ জানাও(); }নয়তো{ জানো(); }

0 Comments

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Choose A Format
Story
Formatted Text with Embeds and Visuals
Video
Youtube, Vimeo or Vine Embeds